‘গরম জল আর ওটস খেয়েই ও সুন্দরী হয়েছে’! নাইসার প্লাস্টিক সার্জারির কথা উড়িয়ে অদ্ভুত দাবি করলেন কাজল

বলিউডের পাওয়ার কাপল অজয় দেবগন এবং কাজলের মেয়ে নাইসাকে নিয়ে মানুষের কৌতুহলের শেষ নেই। ছোটোবেলা থেকেই মিডিয়া লাইমলাইটে থেকেছেন তিনি। সোশ্যাল মিডিয়ায় তার ফ্যান ফলোয়িংও দারুন।এই কারণেই ছোটবেলা থেকেই তার প্রচুর ছবিও ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। আর নাইসার লুক নিয়ে কম কাঁটাছেড়াও করেনি নেটিজনরা। অনেকেরই দাবি ছিল নাইসা নাকি তার মা-বাবার মত সুন্দর নয়‌। তার গায়ের রং অতিরিক্তই কালো।

তবে তার সাম্প্রতিকতম ছবিগুলি আবার অন্য কথা বলছে। নেট দুনিয়ার দাবি তিনি নাকি প্লাস্টিক সার্জারি এবং অন্যান্য চিকিৎসার মাধ্যমে ত্বকের রং ফর্সা করেছেন। সোশ্যাল মিডিয়ায় শুরু হয়েছে ট্রোলের বন্যা। এ নিয়ে এতদিন চুপ থাকলেও সম্প্রতি মুখ খুলেছেন অভিনেত্রী কাজল।মেয়েকে ট্রোল হতে দেখে এবার মাঠে নেমেছেন অভিনেত্রী। তিনি জানান, কোনো রকম প্লাস্টিক সার্জারি কিংবা অন্যান্য চিকিৎসা নয় বরং স্বাস্থ্যকর খাবার এবং ত্বকের চর্চা করেই নাকি বদলেছে মেয়ের রূপ।কাজল জানান, সকালে উঠে গরম জল, টাটকা ফল, সবজি এবং ডিম সেদ্ধ খেয়ে দিন কাটান নাইসা। এরসাথে ত্বক চর্চার জন্য বিভিন্ন ধরণের ফেস মাস্ক মাখেন তিনি। আর এই রুটিনেই বদলে গেছে তার গায়ের রং এবং তার চেহারা।

কাজলের এই দাবিকে উড়িয়ে দিয়েছেন নেটিজেনদের একাংশ। তাদের বক্তব্য, এইভাবে স্কিন চর্চা করে গায়ের রং কখোনোই বদলানো যায়না। এটা সম্পূর্ণ ত্বকের মেলানিনের উপর নির্ভর করে। এটা কেবলমাত্র প্লাস্টিক সার্জারির মাধ্যমেই সম্ভব।

About Tolly Desk

Check Also

Viral video : মদের নেশায় বুঁদ এক ব্যক্তি, তেড়ে গেলেন একজোড়া কুমিরের দিকে, তারপর যা হল

বর্তমান যুগে আট থেকে আশি মানুষ কোনো না কোনো সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহার করেন। ধীরে …